বিজ্ঞানী দেবেন্দ্রমোহন বসু

Filed in কিছু ইতিহাস … by on April 19, 2017 Comments
বিজ্ঞানী দেবেন্দ্রমোহন বসু

তাঁর মামা ছিলেন ভারত তথা সমগ্র বিশ্বের বিজ্ঞানী সমাজে মহীরুহ। সেই মহীরুহের ছায়ায় ঢাকা পড়ে যাওয়ার অনন্ত সম্ভাবনা সত্ত্বেও বিজ্ঞানী দেবেন্দ্রমোহন বসু নিজগুণেই একজন বিজ্ঞানসাধক। পরাধীন ভারতের এই বিজ্ঞানী শত প্রতিকূলতার মাঝেও যেভাবে উচ্চমানের বিজ্ঞান সাধনা করে গিয়েছেন তা শিক্ষণীয়। বিজ্ঞান ও বিজ্ঞানের ইতিহাস এই দুই এর প্রতিই ছিল তাঁর সমান আগ্রহ। প্রচারের আলো থেকে সচেতন ভাবেই নিজেকে দূরে রাখা এই মানুষটির জীবনেতিহাস আমাদের জানা দরকার আর বিজ্ঞানের পাঠকদের জন্য সেই কাজটি করছেন শ্রদ্ধেয় মানসপ্রতিম দাস।

পড়তে থাকুন... »

অকাজের বিজ্ঞান, কাজের আবিষ্কার

অকাজের বিজ্ঞান, কাজের আবিষ্কার

মৌলিক বিজ্ঞানচর্চা নিয়ে হামেশাই কথা ওঠে: যেসব প্রশ্ন আমাদের দৈনন্দিন জীবনে কোনো প্রভাব ফেলে না, তার পিছনে ধাওয়া করে হবেটা কি? কিন্তু সত্যিই কি মৌলিক বিজ্ঞানচর্চা আমাদের দৈনন্দিন জীবনে কোনো প্রভাব ফেলে না? যেসব প্রযুক্তি আমাদের চারিদিকে ছড়িয়ে আছে — যেমন ইন্টারনেট, জি.পি.এস., এম.আর.আই আর রেডিয়েশন থেরাপি — এরা যে অন্য কথা বলে। সকলেই যে মৌলিক বিজ্ঞানের গবেষণা থেকে জন্ম নিয়েছিল! সেই ইতিহাস-ই শুনুন ব্যাকরণ সিং-এর মুখ থেকে। মৌলিক গবেষণাকে নিজের মতো চলতে দিলে কি কি চমৎকার হতে পারে, তার কিছু নমুনা তুলে ধরেছেন সুপ্রতীক পাল।

পড়তে থাকুন... »

জীবাণুদের যত কথা – ৯

জীবাণুদের যত কথা – ৯

জীবাণুদের সাথে অ্যান্টিবায়োটিকসের যুদ্ধে কার পাল্লা ভারী? উত্তরটা বেশ উদ্বেগজনক। এই অবস্থায় আমরা পৌঁছলাম কিভাবে? কিভাবে অ্যান্টিবায়োটিকসের বিরুদ্ধে ব্যাকটেরিয়ার এই অসাধারণ প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে উঠলো? এই প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে ওঠার পিছনে আমাদের অবদান কতটা, সেই বিষয়ে আলোকপাত করেছেন দেবনাথ ঘোষাল।

পড়তে থাকুন... »

বিজ্ঞান পত্রিকা-র সপ্তম সংখ্যা: প্রাণীজগতে স্বার্থপরতা ও অন্যান্য প্রবন্ধ

বিজ্ঞান পত্রিকা-র সপ্তম সংখ্যা: প্রাণীজগতে স্বার্থপরতা ও অন্যান্য প্রবন্ধ

বিজ্ঞান’-এ প্রকাশিত লেখার বাছাই সংকলন নিয়ে হাজির ‘বিজ্ঞান পত্রিকা’-র সপ্তম সংখ্যা। এবারের বিষয় প্রাণীজগতে সহযোগিতা ও প্রতিযোগিতার দ্বন্দ্ব। শ্রমিক মৌমাছিদের আপাত নিঃস্বার্থ চরিত্র থেকে শুরু করে কুকুরের আপাত স্বার্থপরতা, বিজ্ঞান কিভাবে ব্যাখ্যা করে এগুলোকে ? জানতে হলে এবারের পত্রিকা পড়ুন। ই-বুক ফরম্যাটে পড়তে পারেন কিংবা পি ডি এফ থেকে সহজেই প্রিন্ট করে নিতে পারেন।

পড়তে থাকুন... »

পাঠকের দরবার ৫ – চোট লাগলে ফুলে যায় কেন ?

পাঠকের দরবার ৫ –  চোট লাগলে ফুলে যায় কেন ?

মাঠে খেলতে গিয়ে গোড়ালিটা গেল মচকে – আর কিছুক্ষণের মধ্যেই ফুলে উঠল! শরীরের কোন জায়গায় আঘাত লেগে ফুলে যাওয়াটা আমাদের কাছে খুব স্বাভাবিক মনে হয়। কিন্তু, ভেবে দেখেছ কি, এই ফুলে ওঠার কারণ কী? বিশ্বজিত গিরির করা এই প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছেন ডাক্তার লার্স গ্রান্ট।

পড়তে থাকুন... »

‘ক’-এ কোয়ান্টাম: দ্বিতীয় পর্ব

‘ক’-এ কোয়ান্টাম: দ্বিতীয় পর্ব

রহস্যময় কোয়ান্টাম জগৎ নিয়ে ধারাবাহিক লিখছে রাজীবুল ইসলাম। আজ দ্বিতীয় পর্বে থাকছে একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন নিয়ে আলোচনা: কোনো বস্তু কখন কোয়ান্টাম তত্ত্বের আওতায় আসে? কাদের ক্ষেত্রে কণা আর তরঙ্গ ধর্ম একসাথে বিচরণ করতে পারে বা স্রেফ পর্যবেক্ষণ করেই বস্তুর অবস্থা পাল্টে দেওয়া যায়? একটা মার্বেল কি উড়ুক্কু মৌমাছির ক্ষেত্রে এটা হয়না কেন? আসুন, রহস্যময় কোয়ান্টাম জগৎ আর রোজকার পরিচিত ক্লাসিক্যাল জগতের সীমারেখাটা কোথায়, সেই চুলচেরা বিশ্লেষণে যাওয়া যাক।

পড়তে থাকুন... »

পায়রার বাক্সে স্থান-সঙ্কুলান সমস্যা

পায়রার বাক্সে স্থান-সঙ্কুলান সমস্যা

গণিতের উপপাদ্যের মজা হলো, কখন কোথায় কাজে লেগে যাবে, ঠিক নেই। আপাতদৃষ্টিতে দুটো আলাদা সমস্যা, পায়রার খুপড়ি দখল নিয়ে একটা প্রশ্ন আর নিমন্ত্রণবাড়িতে পরিচিতের সংখ্যা নিয়ে সম্পূর্ণ ভিন্ন আরেকটা প্রশ্ন, দুইয়েরই উত্তর দেওয়া সম্ভব একটা সহজ উপপাদ্যের সাহায্যে। প্রশ্ন দুটি কি এবং কিভাবে একই উপপাদ্যের সাহায্যে তার উত্তর দেওয়া যায়, সেই গল্প বলছে নীলাব্জ চ্যাটার্জী।

পড়তে থাকুন... »

গ্রীন ফ্লুওরেসেন্ট প্রোটিন (পর্ব ১) : কিছু ইতিহাস

গ্রীন ফ্লুওরেসেন্ট প্রোটিন (পর্ব ১) : কিছু ইতিহাস

২০০৮ সালে রসায়ন বিভাগের নোবেল প্রাইজে সম্মানিত হয়েছিলেন ওসামু শিমোমুরা, মার্টিন চ্যালফি এবং রজার চ্যেন। তিন বিজ্ঞানীর গবেষণার যোগসূত্র জেলিফিশ থেকে জৈবিক আলোনির্গতকারী এক বায়োলুমিনেসেন্ট প্রোটিনকে ঘিরে, যার নাম গ্রীন ফ্লুওরেসেন্ট প্রোটিন, সংক্ষেপে জি এফ পি। জীববিদ্যার জগতে আলোড়ন সৃষ্টিকারী জি এ পি-র আবিষ্কার এবং তার ব্যবহার নিয়ে ধারাবাহিক লেখা লিখছে কুণাল চক্রবর্ত্তী। আজ প্রথম পর্বে থাকছে জি এফ পি-র আবিষ্কারের কিছু ইতিহাস।

পড়তে থাকুন... »